আমি চাই মানুষকে সহযোগিতা করতে: মাশরাফি

ক্রিকেটের সব চেয়ে ছোট ফরম্যাট থেকে অবসর নিয়েছেন গেল বছর। সাদা পোশাকে খেলছেন না ২০০৯ সাল থেকেই। আছেন ওয়ানডের অধিনায়কের দায়িত্বে। সেটাও কতদিন চালিয়ে যাবেন নির্দিষ্ট করে জানাননি। তবে ২০১৯ সালের বিশ্বকাপের পরই চূড়ান্ত সিদ্ধান্তে যাবেন এটা মাঝে মাঝেই বলেন।

যতদিনই খেলুক, এক সময় না এক সময় ছাড়বেন ২২ গজ। কী করবেন এরপর? ক্রিকেটের সাথেই থাকবেন নাকি রাজনীতিতে যুক্ত হবেন? সংবাদমাধ্যম বিবিসি বাংলার এমনই এক প্রশ্নের মুখোমুখি হয়েছিলেন মাশরাফি বিন মুর্তজা।

পরিষ্কার করে নিজের পরিকল্পনার কথা না জানালেও, মানুষের পাশে থাকার ইচ্ছা প্রকাশ করে মাশরাফি বলেন, ‘ক্রিকেট যেহেতু খেলেছি ক্রিকেটকে দেওয়ার অনেক কিছু আছে, প্রায় ১৭-১৮ বছর ক্রিকেট খেলে অনেক কিছু পেয়েছি। ক্রিকেটের সাথে থাকতে পারা আনন্দের ব্যাপার, তবে ভবিষ্যতের কথা বলা কঠিন। তবে অবশ্যই আমি চাই মানুষকে সহযোগিতা করতে।’

কবে অবসর নেবেন, এমন প্রশ্নের উত্তরে জানিয়ে দিলেন এখনই অবসর নিয়ে ভাবছেন না। তিনি বলেন, ‘আমি ভবিষ্যৎ নিয়ে ভাবি না। বর্তমানে বিশ্বাস করি। হ্যাঁ, একটা সময় তো আসবেই তখনকারটা তখন ভাববো।’

চলতি ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে (ডিপিএল) আছেন দারুণ ছন্দে। বল হাতে ডিপিএলের ইতিহাসে সর্বোচ্চ উইকেটের মালিক এখন তিনি। আবাহনীর লিমিটেডের হয়ে খেলা মাশরাফির ঝুলিতে জমেছে ৩৮টি উইকেট। চলতি ডিপিএলের শিরোপা জেতা তার দলের জন্য এখন অনেকটাই নিশ্চিত।